শুক্রবার, ১৯শে আগস্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

এরই মধ্যে আন্দোলনে শরিক হয়েছেন ট্রাম্প পরিবারের সদস্যরাও

News Sundarban.com :
জুন ৫, ২০২০
news-image

পুরো যুক্তরাষ্ট্রে জর্জ ফ্লয়েড হত্যাকাণ্ডে প্রতিবাদ বিক্ষোভ তীব্রতর হয়ে উঠছে। ট্রাম্প প্রশাসন বিক্ষোভকারীদের বিরুদ্ধে পুলিশি ব্যবস্থা গ্রহণ করে এবং কারফিউ জারি করেও পরিস্থিতি সামাল দিতে পারছে না। বিক্ষোভকারীদের ওপর ব্যাপক লাঠিচার্জ ও টিয়ারগ্যাস নিক্ষেপ করা হচ্ছে। কিন্তু প্রতিবাদী জনগণ কারফিউ উপেক্ষা করেও রাস্তায় নেমে আসছে। রীতিমতো হিমশিম খাচ্ছে রিপাবলিকান দলের নেতৃত্বে পরিচালিত সরকার।

এরই মধ্যে আন্দোলনে শরিক হয়েছেন ট্রাম্প পরিবারের সদস্যরাও। ট্রাম্পের দ্বিতীয় স্ত্রী মার্লা ম্যাপলস ও তার মেয়ে জর্জটাউন ল’স্কুলের প্রাক্তন ছাত্র টিফানি ট্রাম্প আন্দোলনে অংশ নিয়েছেন। একই সঙ্গে ফরাসি কিংবদন্তি হেলেন কেলারের উদ্ধৃত করে লিখেছেন, ‘একা একা আমরা সামান্যই অর্জন করি, কিন্তু এক সঙ্গে করতে পারি অনেক কিছুই।’ খবর এনডিটিভির

বর্ণবাদবিরোধী চলমান আন্দোলনে এই হ্যাশট্যাগগুলো সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে জনপ্রিয় হয়ে উঠছে। হোয়াইট হাউসের বাইরে বিক্ষোভকারীদের ওপর পুলিশি হামলার কয়েক ঘণ্টার মধ্যে টুইটার ও ইনস্টাগ্রামে এই পোস্ট করেন ২৬ বছর বয়সী টিফানি।

বর্ণবিদ্বেষ এবং পুলিশি বর্বরতার প্রতিবাদে সমবেত উদ্যোগে ব্ল্যাকআউট টুইসডে ক্যাম্পেন শুরু হয়েছে। মঙ্গলবার সারা বিশ্বের সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোতে ফ্লয়েডের মৃত্যুর প্রতিবাদে ঝড় উঠেছিল।