রবিবার, ২১শে এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

৫ মাস বন্ধ সত্তেও চলতি বছরে ২০০টি বৈদ্যুতিক রেল ইঞ্জিন তৈরি করল চিত্তরঞ্জন

News Sundarban.com :
নভেম্বর ২৫, ২০২০
news-image

নিউজ সুন্দরবন ডেক্স: অতিমারির প্রকোপ সত্ত্বেও চলতি বছরে ২০০টি বৈদ্যুতিক ইঞ্জিন তৈরি করল চিত্তরঞ্জন লোকোমোটিভ। চলতি আর্থিক বছরে করোনার জেরে ৫ মাস বন্ধ ছিল চিত্তরঞ্জন রেল ইঞ্জিন কারখানা। ৫ মাস বন্ধ সত্তেও চলতি বছরে ২০০টি বৈদ্যুতিক রেল ইঞ্জিন তৈরি করল এই কারখানা, যা রেকর্ড।

কারখানা কর্তৃপক্ষের তরফে এই তথ্য জানিয়ে দাবি করা হয়েছে, এ বছর বৈদ্যুতিক রেল ইঞ্জিন উৎপাদনে নতুন লক্ষ্যমাত্রা রাখা হয়েছে। ২০২০-২১ অর্থবর্ষে ২৩ নভেম্বর পর্যন্ত ইঞ্জিন উৎপাদনের যে হিসাব দেওয়া হয়েছে, কারখানা কর্তৃপক্ষের পক্ষে তা বেশ উৎসাহব্যাঞ্জক।

চলতি বছরে করোনার জেরে এপ্রিল থেকে অগস্ট পর্যন্ত বন্ধ ছিল উৎপাদনের কাজ। তার পর ফের প্রায় পুরো দমে কাজ শুরু হয়। চলতি আর্থিক বছরে প্রথম ১৫০টি রেল ইঞ্জিন তৈরি করতে ১২৯ দিন সময় লেগেছে। পরের ৫০টি ইঞ্জিন তৈরি হয়েছে মাত্র ৩০ দিনে।

সম্প্রতি ২০০তম ইঞ্জিনটি এই কারখানা থেকে দেশের রেলপথে পৌঁছে গিয়েছে। প্রসঙ্গত, ২০১৮-১৯ আর্থিক বছরে ৪০২টি এবং ২০১৯-২০ আর্থিক বছরে ৪৩১টি ইঞ্জিন উৎপাদন করেছে চিত্তরঞ্জন রেল ইঞ্জিন কারখানা। করোনা আবহে এই খবর সত্যি বাড়তি উৎসাহ যোগাচ্ছে শিল্প মহলকে।