বুধবার, ১৫ই মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

ক্ষেতের ধান বেঁধে দিয়ে কৃষক কে সাহায্য পুলিশের

News Sundarban.com :
নভেম্বর ২, ২০২০
news-image

বিশ্লেষণ মজুমদার, ক্যানিং –

অবিশ্বাস্য হলে ও সত্যি।রীতিমতো পুলিশের পোশাক পরে ধানক্ষেতে ধান বেঁধে দিয়ে দরিদ্র চাষীকে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিলেন পুলিশ কর্মীরা। তারপর সেই ধান মাঠ থেকে গৃহস্থ চাষীর বাড়িতে পৌঁছে দিলেন পুলিশ।এমনই ছবি ধরা পড়লো দক্ষিণ ২৪ পরগনা জেলার ক্যানিং ২ ব্লকের জীবনতলা থানার অধিনস্থ হেদিয়া মোল্লা পাড়ায়। পুলিশ মাঠে ধান বেঁধে দিয়ে দরিদ্র চাষীকে সহযোগিতা করার ছবি প্রকাশ্যে আসতেই ব্যাপক সাড়া ফেলে দিয়েছে বিভিন্ন মহলে।
জানা গেছে জীবনতলা থানার ওসি সমরেশ ঘোষ বিভিন্ন তদন্তের জন্য বিশাল পুলিশ বাহিনী নিয়ে পাড়ার মধ্যে তদন্তে বেরিয়েছিলেন।

সময় টা প্রায় দুপুর ১২ টা।ওসি সমরেশ ঘোষ দেখতে পায় মাঠের মধ্যে প্রখর রৌদ্রে একজন চাষী নিজের ক্ষেতে ধান বাঁধার কাজ করছেন। তাঁর কাছে জানতে চায় কেন একা একা রৌদ্রের প্রখর তাপে ধান বাঁধার কাজ করছেন?চাষী তার দারিদ্রতার কথা জানায়।লকডাউনে আর্থিক অভাব অনটনের জন্য চাষের কাজ একা একাই করতে হচ্ছে। এমন কথা শোনামাত্র চাষীর সাথে ধান বাঁধার কাজে হাত লাগায় জীবনতলা থানার ওসি সমরেশ ঘোষ।সমরেশ বাবুর সাথে ধান বেঁধে দেওয়ার কাজে হাত লাগান অন্যান্য পুলিশ কর্মীরাও।ক্ষেতের মাঠে পুলিশ ধান বাঁধার কাজ করছে এমন খবর চাউর হতেই মূহুর্তে ভীড় জমে সাধারণ মানুষের।পুলিশ প্রশাসনের এমন মানবিক কর্মকান্ড দেখে স্তম্ভিত। স্থানীয় বাসিন্দা মহম্মদ আনসার বলেন ‘পুলিশ প্রশাসন সম্পর্কে সাধারণ মানুষের ধারণা,পুলিশ ঘুস খায়,বাজে কাজ করে।সেই জায়গায় দাঁড়িয়ে পুলিশের ভালো কাজের জন্য কোন প্রকার প্রশংসা প্রকাশ্যে আসে না। সেই ধারণার আমূল বদল ঘটিয়ে ভালো কাজের জন্য পুলিশ প্রশাসন কে পুরষ্কৃত করেছেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী। পাশাপাশি ১ লা সেপ্টেম্বর পুলিশ দিবস হিসাবে ঘোষনা করেছেন। এই দুটো ছবি দারুণ ভাবে নাড়া দিয়েছে পুলিশ সম্পর্কে I

জীবনতলা থানা এলাকায় এক দরিদ্র কৃষককে রোদের মধ্যেই মাঠে ধান বেঁধে দিয়ে সাহায্য করছে পুলিশ I
এটা একটা ভালো কাজের রোল মডেল I পুলিশ ঘুষ খায়,এই দুটো ছবি দারুণ ভাবে নাড়া দিয়েছে পুলিশ সম্পর্কে I

জীবনতলা থানা এলাকায় এক দরিদ্র কৃষককে রোদের মধ্যেই মাঠে ধান বেঁধে দিয়ে সাহায্য করছে পুলিশ I
বর্তমান সময়ে পুলিশের এমন মানবিক কাজ রোল মডেল, পুলিশ ঘুষ খায়,বাজে কাজ ও করে,তবে তার মধ্যেও কিছু কিছু ভালো মানুষ সমাজের বুকে পুলিশ হয়ে সাহায্য ও করে।জীবনতলা থানার ওসি সমরেশ বাবুর নেতৃত্বে অন্যান্য পুলিশ কর্মীরা তা করে দেখিয়ে দিলেন। যা রাজ্যে তথা দেশের মধ্যে এমন ঘটনা বিরল।