সোমবার, ৮ই এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

প্রসূতির অ্যাম্বুল্যান্স ঘুরিয়ে দিতে বলেছিলেন দিলীপ,অভিযোগ দায়ের থানায়

News Sundarban.com :
জানুয়ারি ৮, ২০২০
news-image

অ্যাম্বুল্যান্সে ছিল এক প্রসূতি। সভা চলাকালীন সেই অ্যাম্বুল্যান্স ঘুরিয়ে দিতে বলেছিলেন দিলীপ ঘোষ। সেই ঘটনায় এবার বিজেপির রাজ্য সভাপতির নামে কৃষ্ণনগর কোতয়ালি থানায় দায়ের হল অভিযোগ।

অভিযোগ, গত ৬ তারিখ কৃষ্ণনগরে অভিনন্দন যাত্রার শেষে জেলাশাসকের অফিসের সামনে সভা চলাকালীন একটি অ্যাম্বুল্যান্স চলে আসে। সেই অ্যাম্বুল্যান্সকে অন্য রাস্তায় ঘুরিয়ে দেন দিলীপ ঘোষ। নিজে মঞ্চে থেকে নির্দেশ দেন অ্যাম্বুল্যান্স ঘুরিয়ে অন্য রাস্তা দিয়ে যাওয়ার জন্য। দিলীপ ঘোষের সেই বক্তব্য ভাইরাল হয় সোশ্যাল মিডিয়ায়। খবর হয় সেটি।

খবর হওয়ার পরই নড়েচড়ে বসে পুলিস। খোঁজ নিয়ে পুলিস জানতে পারে, ওই অ্যাম্বুল্যান্সে এক প্রসূতি ছিলেন। নাম মঞ্জিরা বিবি। ধুবলিয়াতে বাড়ি ওই প্রসূতির। সেদিন কৃষ্ণনগর সদর হাসপাতালে ভর্তি করার জন্য নিয়ে যাওয়া হচ্ছিল তাঁকে। এরপরই এই ঘটনায় অভিযোগ দায়ের হল থানায়। তবে এখনও পর্যন্ত ওই প্রসূতির কোনও বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

সেদিন নদিয়ার কৃষ্ণনগরে জেলাশাসকের অফিসের সামনে সভা করছিলেন দিলীপ ঘোষ। জমায়েতও ভালোই হয়েছিল। ঠিক তখনই সেখান দিয়ে যাচ্ছিল একটি অ্যাম্বুল্যান্স। কিন্তু অ্যাম্বুল্যান্সকে পথ ছাড়েননি দিলীপবাবু। বরং নিদান দেন, এখান দিয়ে যেতে দেওয়া হবে না। লোকে রাস্তায় বসে আছে। বিরক্ত হবেন ওনারা। ঘুরিয়ে অন্য দিক দিয়ে চলে যান। দিলীপের এমন হুঙ্কারের পর অ্যাম্বুল্যান্স ঘুরিয়ে নিতে বাধ্য হন চালক।

ভিডিয়োটি ভাইরাল হওয়ার পর সমালোচনার মুখে পড়েন বিজেপির রাজ্য সভাপতি। কিন্তু সমালোচনার মুখেও নিজের অবস্থান বদলাননি বিজেপির রাজ্য সভাপতি। বরং আরও বলেন, “দরকার হলে আবার আটকাব।”