সোমবার, ২২শে এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

ক্যানিং স্পোর্টস কমপ্লেক্স স্টেডিয়ামে ফুটবল প্রতিযোগিতার সূচনা করেন ব্যারোটো

News Sundarban.com :
ডিসেম্বর ২৪, ২০১৯
news-image

বিশ্লেষণ মজুমদার, ক্যানিং:

রবিবার দুপুরে চতুর্থ বর্ষের ৮ দলের এক নকআউট ফুটবল প্রতিযোগিতার মহাযঞ্জ শুরু হল ক্যানিং স্পোর্টস কমপ্লেক্স স্টেডিয়ামে।এদিন পাঁচটি ফুটবলে কিক মেরে ফুটবল প্রেমী দর্শকদের উপহার দিয়ে ফুটবল প্রতিযোগিতার সূচনা করেন ব্রাজিলের ফুটবল তারকা তথা মোহনবাগানের সবুজ তোতা নামে খ্যাত র‍্যামিরেজ জোস ব্যারোটো।এদিন ফুটবল মহাযঞ্জের সূচনা পর্বে বিশিষ্টদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ক্যানি পূর্বের বিধায়ক শওকাত মোল্ল্যা,মাতলা ২ গ্রামপঞ্চায়েত প্রধান উত্তম দাস,ক্যানিং ১ পঞ্চায়েত সমিতির সদস্য পরেশ রাম দাস,জেলাপরিষদ সদস্য সুশীল সরদার,ক্যানিং মহকুমা পুলিশ আধিকারীক দেবীদয়াল কুন্ডু,ক্যানিং থানার ভারপ্রাপ্ত আধিকারীক অমিত কুমার হাতি সহ অন্যান্য বিশিষ্টরা।রবিবার দক্ষিণ ২৪ পরগণা জেলার ক্যানিংয়ের মাতলা১,২ নম্বর পঞ্চায়েত, দিঘীরপাড় গ্রামপঞ্চায়েত আয়োজিত মিঠাখালী প্রতিলিপি সংঘের উদ্যোগে আটদলের এক নকআউট ফুটবল খেলা কে ঘিরে ক্যানিং স্পোর্টস কমপ্লেক্স স্টেডিয়ামে প্রায় পনেরো হাজার দর্শক বাঙালীর সেরা খেলাকে উপভোগ করেন।এদিন ২-০ গোলে কলকাতা পুলিশ দল কে পরাজিত করে জয়লাভ করে সাতমুখী প্রিয়া সংঘ।ম্যাচের সেরা হন প্রিয়া সংঘের সুমিত ওঁরাও। ম্যাচ শেষে ম্যাচের সেরা ফুটবলারের হাতে তিন কেজি ওজনের একটি ভেটকি মাছ সহ অন্যান্য পুরষ্কার সামগ্রী তুলেদেন খেলা উদ্যোক্তারা। পাশাপাশি এদিন টিকিট বিক্রির উপর লটারীর মাধ্যমে প্রায় পঞ্চাশজন ফুটবল প্রেমী দর্শকের হাতে সোনার আংটি,মোবাইল ফোন সহ বিভিন্ন পুরষ্কার তুলে দেন ব্রাজিলের ফুটবলার র‍্যামিরেজ জোস ব্যারোটো। খেলা পরিচালন উদ্যোক্তা কমিটির অন্যতম প্রধান সদস্য পরেশরাম দাস বলেন “বাঙালীর প্রিয় খেলা ফুটবল। চারিদিকে একটা উষ্ণআবহের পরিস্থিতি তৈরী হয়েছে।পাশাপাশি নষ্ট হচ্ছে ভ্রাতৃত্ববোধ সম্পর্কের অটুট বন্ধনও।আর এমন সম্পর্কের অটুট বন্ধন রাখতে পারে একমাত্র খেলাধূলা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান।আর সেই কারণের এলাকায় শান্তির বাতাবরণ ছড়িয়ে দিয়ে ভ্রাতৃত্ববোধ বন্ধন অটুট রাখতে আমাদের এই ফুটবল টুর্ণামেন্টের আয়োজন।”

অন্যদিকে মোহন বাগানের সবুজ তোতা র‍্যামিরেজ জোস ব্যারোটো বলেন “প্রত্যন্ত সুন্দরবন এলাকায় এমন ফুটবল টুর্ণামেন্ট দেখে আমি অভিভূত।প্রচুর ফুটবল প্রেমী দর্শক গ্যালারী উপচে পড়ে খেলা দেখেছেন।আগামী দিনে আবার ও সুযোগ পেলে এমন টুর্ণামেন্টে আসবো।”

মিঠাখালী প্রতিলিপি সংঘ আয়োজিত চতুর্থ বর্ষের ‘চাঁদমনি দাস ও বিহারীলাল দাস’ স্মৃতি ট্রফি এই ফুটবল মহাযঞ্জের প্রতিযোগিতা চলবে আগামী ২৬ ডিসেম্বর পর্যন্ত।