বৃহস্পতিবার, ১১ই এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

চন্দননগরে জগদ্ধাত্রী পুজোর কার্নিভ্যাল দেখেই দুর্গাপুজোর কার্নিভ্যালের ভাবনা:মুখ্যমন্ত্রী

News Sundarban.com :
নভেম্বর ৬, ২০১৯
news-image

চন্দননগরে জগদ্ধাত্রী পুজোর কার্নিভ্যাল দেখেই দুর্গাপুজোর কার্নিভ্যালের ভাবনা। চন্দননগরের কার্নিভ্যাল দেখেই শুরু হয়েছে শারদ কার্নিভ্যাল। আজ চন্দনগরে দাঁড়িয়ে একথা বললেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্য়ায়। জগদ্ধাত্রী পুজোর নবমীতে আজ চন্দননগর, চুঁচুড়া, মানকুণ্ডু জুড়ে শেষ মুহূর্তের প্যান্ডেল হপিংয়ের ভিড়। এরমধ্যেই আজ চন্দননগরে যান মুখ্যমন্ত্রী।

সেখানে দাঁড়িয়ে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, “আপনাদের কার্নিভ্যাল দেখেই আমরা দুর্গাপুজোর কার্নিভ্যাল শুরু করেছি। তাতে আমি আমার নিজস্ব কিছু ভাবনা, ভিশন মিশিয়েছি।” এরপরই তিনি বলেন, “এখানে আমরা আলো হাব তৈরি করেছি। তবে আপনাদের দেখে শুরু করলেও দুর্গাপুজোর কার্নিভ্যাল কিন্তু অনেকখানি এগিয়ে গিয়েছে। আমাদের দুর্গাপুজোর মতো কার্নিভ্যাল করুন।” এই প্রসঙ্গে ইন্দ্রনীল সেন, অসীমা পাত্র , রামবাবুর উদ্দেশে তৃণমূল নেত্রী চন্দননগর কার্নিভ্যালে আরও বেশি সময় দেওয়ার নির্দেশ দেন।

আগামিকাল দশমী। দশমীতেই কার্নিভ্যালে সেজে ওঠে আলোকনগরী চন্দননগর। দূর দূরান্ত থেকে মানুষ সেই কার্নিভ্যাল দেখতে ভিড় জমান। আজ থেকেই প্রশাসনিক স্তরে শুরু হয়ে গিয়েছে তার প্রস্তুতি। কার্নিভ্যাল উপলক্ষে আঁটঘাট বেঁধে তোড়জোড় চলছে পুজো কমিটিগুলিরও।

প্রসঙ্গত, ২০১৫ সাল থেকে কলকাতা শহরের বড় পুজোগুলিকে নিয়ে রেড রোডে শারদ কার্নিভ্যালের সূচনা করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এবছর সেই কার্নিভ্যালের ছিল পঞ্চম বর্ষপূর্তি। এই কয় বছরে ধারে ভারে বহরে বেড়েছে শারদ কার্নিভ্যাল। এবছর রেড রোডে কার্নিভ্যাল দেখতে উপস্থিত ছিলেন অনেকে বিদেশি অতিথিও।