বুধবার, ১২ই জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

আগামী সপ্তাহে দিল্লিতে বসছে ভারত-পাকিস্তানের ‘ডিফেন্স টেকনোলজি অ্যান্ড ট্রেড ইনিসিয়েটিভ’ (ডিটিটিআই) বৈঠক

News Sundarban.com :
অক্টোবর ১৯, ২০১৯
news-image

২০০৮ সালে অর্থাত্ মনমোহন সিং জমানায় ভারত-মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিরক্ষা সংক্রান্ত ব্যবসা কার্যত শূন্য ছিল। এখন ওই ব্যবসা চলতি বছরের শেষে পৌঁছতে পারে ১৮০০ কোটি ডলার। নরেন্দ্র মোদী সরকারে দু’দেশের প্রতিরক্ষা সম্পর্ক যে আরও মজবুত হয়েছে এ কথা দ্বর্থ্য ভাষায় জানাল পেন্টাগন।

আগামী সপ্তাহে দিল্লিতে বসছে ভারত-পাকিস্তানের ‘ডিফেন্স টেকনোলজি অ্যান্ড ট্রেড ইনিসিয়েটিভ’ (ডিটিটিআই) বৈঠক। দুই দেশের প্রতিরক্ষা সংক্রান্ত ব্যবসা আরও ত্বরান্বিত করতে বসছে নবম তম ডিটিটিআই বৈঠক। মার্কিন প্রতিরক্ষা আধিকারিক এলেন লর্ডের সঙ্গে বৈঠক করবেন ভারতের প্রতিরক্ষা সংক্রান্ত সচিব অপূর্ব চন্দ্র। লর্ড জানান, এই বৈঠকে অংশগ্রহণের জন্য মুখিয়ে রয়েছেন তিনি। তার আগে ভারত-মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের বন্ধুত্বপূর্ণ দ্বিপাক্ষিক সম্পর্কের পেন্টাগনের প্রশংসা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ বলে মনে করা হচ্ছে।

উল্লেখ্য, ‘মেক ইন ইন্ডিয়া’ প্রকল্পে ভারতেই প্রতিরক্ষা সরঞ্জাম তৈরির উপর জোর দিচ্ছে মোদী সরকার। এ ক্ষেত্রে বিনিয়োগে উত্সাহী মার্কিন প্রতিরক্ষা সংস্থাগুলি। লোকহিড মার্টিন, বোয়িংয়ের মতো সংস্থাও চাইছে দেশীয় সংস্থাগুলির সঙ্গে হাত মিলিয়ে কাজ করতে। তবে, অনেকাংশে বাধা হয়ে দাঁড়াচ্ছে ‘মেক ইন ইন্ডিয়ার’ বেশ কিছু শর্ত।

লকহিড মার্টিন ইতিমধ্যেই জানিয়েছে, যদি ভারত এফ-২১ কিনতে চায়, তাহলে ওই বিমান কাউকে বিক্রি করবে না। ভারতে বায়ুসেনার বিমান কেনা নিয়ে যে দরপত্র হেঁকেছে, তাতে অংশগ্রহণ করেছে লকহিড মার্টিন। সূত্রের খবর, ১৮০০ কোটি মার্কিন ডলারের ওই দরপত্র পেতে মরিয়া লকহিড মার্টিন।