মঙ্গলবার, ২৩শে এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

ইসরো প্রধান ডঃ কে শিভানকে নিজের বুকে টেনে নিলেন মোদী

News Sundarban.com :
সেপ্টেম্বর ৭, ২০১৯
news-image

বাধা এসেছে। তাই বলে থমকে যাবে না প্রচেষ্টা। গতকালের পর আজ আরও একবার ইসরোর কন্ট্রোল রুমে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। পাশে দাঁড়ালেন ইসরোর বিজ্ঞানীদের। ভাষণ শেষে বিজ্ঞানীদের সঙ্গে হাত মিলিয়ে বেরিয়ে যাওয়ার সময়ে তৈরি হল এক আবেগঘন মুহূর্ত। আবেগঘন ইসরো প্রধান ডঃ কে শিভানকে নিজের বুকে টেনে নিলেন মোদী। পিঠ চাপড়ে সান্ত্বনা দিলেন। আবেগে চোখের কোন যেন চিকচিক করে উঠল মোদীরও। শনিবার সকালে ইসরোর ব্যাঙ্গালুরুর কন্ট্রোল রুমে তখন যেন থমথমে নিস্তব্ধতা। চন্দ্রযান-২-এর বিশাল কর্মযজ্ঞে এখান থেকেই সামিল হয়েছিলেন বিজ্ঞানীরা। আজ সেখানেই চুপ করে দাঁড়িয়ে সকলে। পূর্বনির্ধারিত সময় অনুযায়ী কাঁটায় কাঁটায় আটটায় ঢুকলেন প্রধানমন্ত্রী। কন্ট্রোল রুমের কাঁচের দরজা ঠেলে এগিয়ে এলেন। তাঁকে স্বাগত জানাতে এগিয়ে এলেন ইসরোর কর্তারা।

স্টেজে উঠে প্রথমেই, “ভারতমাতা কি জয়!” ডাক দিলেন মোদী। বিজ্ঞানীদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, “আপনারা ভারত মাতার জন্য লড়েন, তাঁর জন্যই বাঁচেন। তাই দেশের মাথা উঁচু করতে নিজের পুরো জীবন দিয়ে দেন।” চন্দ্রযান-২ অভিযানের শেষ লগ্ন আশানুরূপ হয়নি। এমন পরিস্থিতিতে সাহস জোগাতে বিজ্ঞানীদের পাশে দাঁড়ালেন প্রধানমন্ত্রী। তিনি বললেন, “কাল আমি আপনাদের পরিস্থিতি বুঝতে পারছিলাম। তাই বেশিক্ষণ থাকিনি।” কিন্তু সকাল হতেই বিজ্ঞানীদের পাশে দাঁড়াতে ছুটে আসেন তিনি।