বুধবার, ৬ই জুলাই, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

৪ বলে ৪ উইকেট নিয়েছেনমালিঙ্গার

News Sundarban.com :
সেপ্টেম্বর ৬, ২০১৯
news-image

২০০৭ বিশ্বকাপে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে চার বলে চার উইকেট নিয়েছিলেন লাসিথ মালিঙ্গা।  ওয়ানডেতে তো বটেই, আন্তর্জাতিক ক্রিকেটেই সেটি ছিল চার বলে চার উইকেট নেওয়ার প্রথম ঘটনা। ১২ বছর পর সেই একই কীর্তি টি২০-তেও গড়লেন লংকান এই পেসার। নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজের তৃতীয় ও শেষ টি২০ ম্যাচে টানা চার বলে চার উইকেট নিয়েছেন তিনি। সেইসঙ্গে প্রথম বোলার হিসেবে টি২০ ক্রিকেটে দুটি হ্যাটট্রিকের নতুন রেকর্ডে লিখিয়েছেন নিজের নাম।

১২ বছর আগে টানা চার বলে চার উইকেট মালিঙ্গা পেয়েছিলেন দুই ওভার মিলিয়ে। শনিবার অবশ্য এই কীর্তি গড়েছেন একই ওভারে। নিজের দ্বিতীয় ওভারের তৃতীয় বলে দুর্দান্ত এক ইয়র্কারে বোল্ড করেন কলিন মানরোকে। পরের বলে আরও একটি ইয়র্কারে এলবিডব্লিউ হন হামিশ রাদারফোর্ড। লেগ বিফোরের আবেদনে আম্পায়ার সাড়া না দিলে রিভিউ নিয়ে উইকেটটি আদায় করেন শ্রীলংকার টি২০ অধিনায়ক মালিঙ্গা। পরের বল আবারও ইয়র্কার। লেট সুইং ঠিকভাবে বুঝেই উঠতে পারেননি ব্যাটসম্যান কলিন ডি গ্র্যান্ডহোম। ফলাফল, বোল্ড! মালিঙ্গার হ্যাটট্রিক পূরণ!

টি২০-তে এর আগেও একটি হ্যাটট্রিক করেছিলেন মালিঙ্গা, ২০১৭ সালে কলম্বোতে বাংলাদেশের বিপক্ষে ম্যাচে টানা তিন বলে ফিরিয়েছিলেন মুশফিকুর রহিম, মাশরাফি বিন মুর্তজা ও মেহেদী হাসান মিরাজকে। তবে শনিবার কেবল হ্যাটট্রিকে থেমে থাকেননি এই পেসার। ওভারের শেষ বলটায় দেন আরও একটি ইয়র্কার। আগের তিন ব্যাটসম্যানের মতো রস টেলরও ব্যর্থ হন সেই ইয়র্কার সামলাতে। এবারও শেষ মুহূর্তের সুইংয়ে বল গিয়ে আঘাত করে টেলরের প্যাডে। মালিঙ্গার আবেদনে সাড়া দিয়ে আঙুল তোলেন আম্পায়ার। বিনা উইকেটে ১৫ থেকে ওই ওভার শেষে কিউইদের স্কোর দাঁড়ায় চার উইকেটে ১৫।