মঙ্গলবার, ১৬ই এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

ডেঙ্গুতে কালীঘাট রোড ও আতঙ্কে দিন গুনছে,হেলদোল নেই পুরসভার

News Sundarban.com :
অক্টোবর ৩০, ২০১৭
news-image

ডেঙ্গু এবার মুখ্যমন্ত্রীর পাড়ায় । ৮২,নম্বর কালীঘাট রোড । মমতা ব্যানার্জির বাড়ি থেকে ৮ টি বাড়ি পরের বাড়ির ঠিকানা এটিই । আর সেই বাড়ির নিচের তলায় থাকেন রিঙ্কি দাশগুপ্ত । এখন ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে তিনি দক্ষিণ কলকাতার একটি বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি । দেওয়া হচ্ছে প্লেটলেট । অবস্থা আশঙ্কাজনক।
শুক্রবার হাসপাতালে ভর্তি হলেও শনিবার রাত পর্যন্ত এলাকায় যাননি কলকাতা কর্পোরেশনের স্বাস্থ্য কর্মীরা । এখনও ছড়ানো হয়নি মশা নিরোধক ধোঁয়া । হাসপাতালে ভর্তি হওয়ার পর থেকে প্রতিবেশীরা দফায় দফায় এসে দেখে গেছেন গৃহবধূ রিঙ্কি দাশগুপ্তকে । তবে কোনও খোঁজ নেওয়া হয়নি পৌরসভার তরফে । ডেঙ্গুর থেকেও ৭৩নম্বর ওয়ার্ডে ম্যালেরিয়ার মশার দাপটে কাহিল এলাকাবাসী ।
এরাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী ও স্বাস্থ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জির বাড়ি থেকে দক্ষিণ দিকের রাস্তায় খানিকটা গেলে কালীঘাট রোড ও হরিশ চ্যাটার্জি স্ট্রিটের সংযোগকারী গলি । সেই গলির ৩ নম্বর বাড়িতে এখন আতঙ্কে দিন গুনছেন দাশগুপ্ত পরিবার । দিন ৪ আগে ধূম জ্বর ও গা হাত পায়ে তীব্র ব্যথা অনুভব করেন রিঙ্কি দাশগুপ্ত । দেখানো হয় স্থানীয় এক চিকিৎসককে । তিনি সাধারণ জ্বর বলেই জানান । এরপর শারীরিক অবস্থা অবনতি হতে থাকলে রক্ত পরীক্ষা করানো হয় বেসরকারি সংস্থা থেকে । এন এস ওয়ান পরীক্ষা করানো হলে তাতে ডেঙ্গু ধরা পড়ে । এদিকে রোগীর অবস্থার ক্রমশ অবনতি ঘটে। প্লেটলেটের মাত্রাও কমতে থাকে ।
অবশেষে গত শুক্রবার দুপুরে তড়িঘড়ি দক্ষিণ কলকাতার একটি বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি করা হয় । শনিবার রিঙ্কি দাশগুপ্তকে সকাল থেকে মোট ৪ ইউনিট প্লেটলেট দেওয়া হয়েছে । তবে চিকিৎসকরা শনিবার রাত পর্যন্ত অবস্থার উন্নতি হয়েছে বলে জানাননি । এদিন এলাইজা পরীক্ষা করা হলে ডেঙ্গু ধরা পড়ে । রিঙ্কি দাশগুপ্তের স্বামী একটি কম্পিউটার যন্ত্রাংশ বিক্রির দোকানে কাজ করেন । বাড়িতে তাঁর মাত্র ৫ বছরের শিশু কন্যা শাশুড়ির কাছে আছে বলে জানা গেছে ।