শুক্রবার, ২০শে মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

নামখানার নিউ গৌরাঙ্গের এবছরের ভাবনা স্বর্গের দেশ প্রতিমা পরির বেশে হীরের সাজে

News Sundarban.com :
অক্টোবর ১৮, ২০১৭
news-image

 

ঝোটন

রূপসাগরেডুব দিয়েছে লক্ষ্য মায়াপরী,
নীল আকাশে মেলেছে পাখা-পেঁচা-বলাকারসারি।
ভিন্ন ফুলের কানন জুড়ে প্রজাপতির ঢল,
আনন্দেতে নাচছে ময়ূর-দিকবারণের দল।
পোক্ষিঘোড়ার স্বর্গধামে নানান আয়োজন,
নিউ গৌরাঙ্গ স্পোটিং ক্লাবের-এ এক অনন্য সৃজন।
দুচোখ জুড়ে নেমে এল রঙিন স্বপ্ন ঘোর,
উঠল ভেসে স্বর্গ দেশের আনন্দ সাগর।
বছর ঘুরে মা আসছেন মায়াপরির বেশে,
দর্শকদের স্বাগত জানাই এই স্বর্গের দেশে।

এবছর স্বর্গের দেশ প্রতিমা পরীর বেশে হীরের সাজে এই থিম নিয়ে এবছর নামখানা ব্লকে হাজির হচ্ছেন দক্ষিণ শিবপুর নিউ গৌরাঙ্গ স্পোর্টিং ক্লাব। চতুর্থ বর্ষে পা দিল তাঁদের এবছরের কালীপুজো। ক্লাবের পুজোকমিটির সভাপতি সুকান্ত মন্ডল-এর এবছরের থিম ভাবনাকে বাস্তবিত করতে দিবারাত্র পরিশ্রম করেছেন তাঁদের ওই ক্লাবের ১১৩ জন সদস্য। এই থিমের সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে প্রতিমা শিল্পী পবিত্র দাস আমেরিকান ডাইমন্টস এবং কাঁচ দিয়ে শেষ তুলির টান দিচ্ছেন। বিগ বাজেটের অন্যান্য কালীপুজোগুলির মধ্যে অন্যতম হল এই ক্লাবের পুজো।
পুজো কমিটির সভাপতি সুকান্ত মন্ডল জানান, আমাদের কাছে শুধু থিমটাই বড় কথা নয়। থিমটাকে হতে হবে যুক্তিসঙ্গত এবং বাস্তবিক। আমরা আগামী ভবিষ্যতের কথা মাথায় রেখে আমাদের এই থিম স্বর্গের দেশ। আমরা আশা রাখি গত বছরের তুলনায় এবছর দর্শনার্থীর সংখ্যা কয়েক হাজার গুণ বৃদ্ধি পাবে। এই পুজোর নিরাপত্তা নিয়ে প্রশ্ন করলে তিনি বলেন, আমাদের এই পুজোর নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকবেন স্থানীয় কোস্টাল থানার পুলিশ আধিকারিকবৃন্দ, থাকবেন আমাদের পুজোর স্বেচ্ছাসেবক বাহিনী।
ক্লাব সম্পাদক সুমন্ত মন্ডল জানান, এবছর আমাদের বিশেষ আকর্ষণ হিসেবে থাকছে মেদিনীপুরের হস্তশিল্পের প্রদর্শনী। এবং সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হল আমাদের দেশের মধ্যে এখানে প্রথম প্রদর্শনী কুবিয়া ও পাম্পাস মাছের। নামখানা ব্লকের হেনরি অ্যাইল্যান্ডের উদ্যোগে আমাদের এই প্রদর্শনী থাকছে।


এছাড়া ক্লাবের সহ সম্পাদক সুদীপ্ত দাস জানান, এবছর আমাদের এই থিম সহ আলোকসজ্জা দর্শনার্থীদের নজর কাড়বে। আমাদের এই কালীপুজোর বাজেট ৪ লক্ষ টাকা।
ক্লাবের সভাপতি শুভেন্দু দাস এবং সহ সভাপতি গোপাল দাস বলেন, প্রতিবছরই তাঁরা দর্শনার্থীদের নতুন কিছু উপহার দেন। এবারও তার ব্যতিক্রম হবে না।
এবছর থাকছে দুঃস্থদের বস্ত্রবিতরণ, মেধাবীদের স্কলারশিপ প্রদান, এছাড়া থাকছে মত্স্য, কৃষি ও অন্যান্য বিষয়ে কৃতীদের সংবর্ধনা। এবং চারদিন অন্যান্য অনুষ্ঠানের সঙ্গে থাকছেন জি- বাংলা ২০১৬ দাদাগিরি চ্যাম্পিয়ন দীপকুমার দিন্ডার অনুষ্ঠান। এবছর উদ্বোধনে থাকছেন বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গ।