বৃহস্পতিবার, ১৮ই এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

উত্তর কোরিয়ার কর্মকাণ্ডের তীব্র প্রতিবাদ করছে চীন সরকার

News Sundarban.com :
সেপ্টেম্বর ৩, ২০১৭
news-image

উত্তর কোরিয়ার ষষ্ঠ পরমাণু অস্ত্রের পরীক্ষা চালানোর ঘটনার নিন্দা জানিয়েছে দেশটির প্রতিবেশী দেশগুলো। রোববার উত্তর কোরিয়া পরমাণু অস্ত্রের পরীক্ষা চালায়। দেশটি দাবি করেছে, তারা সফলভাবে হাইড্রোজেন বোমার পরীক্ষা চালিয়েছে। এই বোমা পরমাণু বোমার চেয়ে অনেক গুণ শক্তিশালী যা দূরপাল্লার ক্ষেপণাস্ত্রে ব্যবহার করা সম্ভব।

উত্তর কোরিয়ার এ পদক্ষেপের নিন্দা জানিয়েছে দক্ষিণ কোরিয়া, চীন ও রাশিয়া। দক্ষিণ কোরিয়ার প্রেসিডেন্ট মুন জে বলেছেন, ‘পুরোপুরি বিচ্ছিন্ন’ দেশে পরিণত করতে জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদের অবরোধসহ ষষ্ঠ পরমাণু পরীক্ষা চালানোর ঘটনায় উত্তর কোরিয়ার যতটা সম্ভব কঠোর জবাব পাওয়া উচিত।

উত্তর কোরিয়ার একমাত্র বড় মিত্র দেশ চীন বলেছে, উত্তর কোরিয়া ‘আবারও পরমাণু পরীক্ষা চালিয়ে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের ব্যাপক আপত্তিকে উপেক্ষা করেছে।’ চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বিবৃতিতে আরও বলা হয়েছে, ‘চীন সরকার উত্তর কোরিয়ার এ কর্মকাণ্ডের তীব্র প্রতিবাদ ও কড়া নিন্দা প্রকাশ করছে।’

জাপানের মুখ্য মন্ত্রিপরিষদ সচিব ইয়োসিহিদে সুগা বলেন, উত্তর কোরিয়ার ওপর আরোপ করা অবরোধগুলোর মধ্যে তেল বাণিজ্যকেও অন্তর্ভুক্ত করা উচিত।

পরমাণু অস্ত্রের পরীক্ষা চালানোর মধ্য দিয়ে উত্তর কোরিয়া আন্তর্জাতিক আইন ভঙ্গ করেছে উল্লেখ করে রাশিয়া সব পক্ষকে আলোচনার জন্য আহ্বান জানিয়েছে। তারা বলেছে, কোরীয় উপদ্বীপের সমস্যা সমাধানে আলোচনাই একমাত্র পথ। আন্তর্জাতিক পরমাণু শক্তি সংস্থা এই পরীক্ষাকে ‘তীব্র দু:দুঃখজনক’ ঘটনা বলে উল্লেখ করেছে।

উত্তর কোরিয়া একটি হাইড্রোজেন বোমার উন্নতি ঘটিয়েছে বলে আজ পিয়ংইয়ং দাবি করে। এর কয়েক ঘণ্টা পরই তারা পরমাণু অস্ত্রের পরীক্ষা চালায়। উত্তর কোরিয়া দাবি করে, আজ তারা হাইড্রোজেন বোমারই পরীক্ষা চালিয়েছে।

হাইড্রোজেন বোমা পরমাণু বোমার চেয়ে কয়েক গুণ শক্তিশালী। বিশ্লেষকেরা বলছেন, উত্তর কোরিয়ার এ দাবি সতর্কতার সঙ্গে বিবেচনা করা উচিত।